0
হোমিওপ্যাথিক টিপস (Homeopathc Tips)

১) দূষিত ক্ষতে (Septic Ulcer) ইচিনেসিয়া θ ও গান পাউডার ৩x পর্যায়ক্রমে প্রয়োগে আমি কখনও বিফল হয়নি। - ডাঃ ডি. এম. সরকার

২) কেবল মাত্র দিবাভাগে শয়ন কালে কাশি হলে ফেরাম-মেট উপকারী। - ডাঃ অ্যালেন

৩) শঙ্খাস্থিপ্রদাহ (Mastoditis) প্রথমাবস্তায় ক্যাপসিকাম অপেক্ষা ফেরাম-ফস অনেক ক্ষেত্রেই উপযোগী। রোগীর লক্ষণাবলী যেখানে ধীরে ধীরে প্রকাশ পায়, সেখানেই ফেরাম প্রয়োগের উপযুক্ত ক্ষেত্রে। - ডাঃ সি. এম. বোগার

Homeopathic Tips
Homeopathic Tips


৪) যখন রক্তে হিমোগ্লোবিন বৃদ্ধির প্রয়োজন দেখা দেয়, তখন ফেরাম ফস ৩০x দিনে তিনবার করে দিতে হবে যতক্ষণ না স্বাভাবিক অবস্থা ফিরে আসে। - ডাঃ টি. পি. চ্যাটার্জী

৫) গলগন্ড রোগের (Goitre) একটি মূল্যবান ওষুধ ফিউকাস-ভেসিকিউলোসিস θ প্রত্যহ আহারের পূর্বে ২০ ফোঁটা মাত্রায় প্রযোজ্য।

৬) গলভ্যন্তরীয় সঙ্কোচন (Constriction) রোগে কঠিন ও তরল পদার্থ গিলতে না পারলে হাইওসিয়েমাস ৬ ঘন ঘন মাত্রায় প্রয়োগ করলে আশ্চর্য্য উপকার পাওয়া যায়। - ডাঃ পি এস কামঠান

৭) হাইড্রোসেফালাস রোগীতে হেডেরা হেলিক্স (Hedera Helix) এক ফোঁটায় একমাত্রা একবার মাত্র দিন। পরদিন সকালে নাক দিয়ে পরিস্কার তরল বের হতে থাকবে, এবং একমাত্রায় রোগী আরোগ্য হবে। যদি পুনরাক্রমনের আশঙ্কা থাকে, তবে দ্বিতীয় মাত্রা দিন। ডাঃ আর. বি. দাস

৮) সর্বাঙ্গে অত্যান্ত বেদনাপূর্ণ খোস এবং ওগুলো সহসা পেকে গেলে একমাত্রা হিপার সালফ ১০এম বা ৫০এমই ফলপ্রদ। অনেক ক্ষেত্রে খোসগুলি শুকিয়ে রোগীর সর্বাঙ্গে চুলকানী হয়। তখন একমাত্রা সোরিনাম ১০এম প্রযোজ্য। - ডাঃ কে. ডি. চৌধুরী

৯) মেরদন্ডে রক্ত সঞ্চয় হেতু জিভ ও হাত-পায়ের অব্যর্থ ওষুধ। - গুয়াকো।

১০) রজোনিবৃত্তিকালে রক্তসঞ্চয়হেতু মাথায় ও কানে যন্ত্রনা হলে- গ্লোনইন। - ডাঃ ডরোথি শেফার্ড

১১) বহুমূত্র (ডায়াবেটিস) রোগে ফসফরাস একটি উত্তম ওষুধ; এবং গ্লিসারিন ২০০ অনধিক মাত্রায় ব্যবহার করলে আশ্চর্য্য ফল দেখায়। - ফরতিয়েঁ বার্ণুভি

১২) একপার্শ্বিক শিরঃপীড়া সহ পেটে জ্বালাযুক্ত গরহজমের রোগীতে আইরিস-ভার্স প্রদেয়। - রবার্ট আর. রেড

১৩) অ্যামিবিক আমাশয়ে ইপিকাক প্রয়োগ লিভার অ্যাবসেস হওয়ার আশঙ্কা থাকে না। - ডাঃ পিত্রে হায়েল

১৪) সম্পূর্ণ স্বরলোপে ডাঃ কার্টিয়ারের ইপিকাক অনুমোদন যথার্থ। - ডাঃ কার্ল. এ. উইলিয়াম

১৫) মঞ্চভীতির ওষুধ ইগ্নেসিয়া। মঞ্চে নামার দিন কয়েকমাত্রা এবং তার ঠিক আগে একমাত্রা। - ডাঃ বেনেট্‌

১৬) আমি গলগন্ডের (Goitre) রোগী আয়োডিন সি. এম. দ্বারা আরোগ্য করেছি। পূর্ণিমার পরদিন হতে প্রতি রাত্রে একমাত্রা পরপর চার রাত্রি দিতে হবে। - ডাঃ ই. বি. ন্যাশ

১৭) যে সব ঘর্মহীন স্ত্রী লোকের ঋতুস্রাব পরিস্কার হয়না, তাদের ঋতুস্রাবের অন্ততঃ এক সপ্তাহ আগে থেকে প্রত্যহ চারবার করে জ্যাবোরেন্ডি ১x প্রয়োগ করলে স্বাভাবিক স্রাব হয়।

১৮) মৃগীরোগে ক্যালি-ব্রোমেটাম দিয়ে যখন চিকিৎসা করবেন, তখন রোগীকে লবনবিহীন খাদ্য খেতে বলবেন। - ডাঃ আর বিশ্বাস

১৯) রতিক্রিয়ার পরদিন রক্তস্রাব ক্রিয়োজোটের একটি বিশিষ্ট লক্ষণ। ডাঃ পি. আর. রাও

২০) ট্র্যাকোমা রোগে কেলি-মিউর ৩০x প্রত্যহ চারমাত্রা প্রয়োগ করলে বিশেষ ফল পাওয়া যায়। ডাঃ কামঠান 

Post a Comment

 
Top